মোঃ হেলাল উদ্দিন উজ্জল, ফুলবাড়ীয়া প্রতিনিধিঃ ময়মনসিংহের ফুলবাড়ীয়ায় সন্ত্রাসীদের হামলায় গুরুতর আহত হয়েছে ফুলবাড়ীয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ শাখার ছাত্রলীগের যুগ্ম আহবায়ক ইয়াছির আরাফাত হৃদয়। বর্তমানে সে ময়মনসিংহের ট্রমা সেন্টারে চিকিৎসাধীন রয়েছে। সন্ত্রাসীরা লোহার রড ও হকিস্টিক দিয়ে পিটিয়ে বাম হাত ভেঙ্গে ফেলেছে। গত ২৩ নভেম্বর বৃহস্পতিবার হৃদয়ের বাম হাতে এক জটিল অপারেশন করা হয়েছে। ঘটনার বিবরণীতে জানা যায়, দলীয় গ্র“পিংকে কেন্দ্র করে ১৬ নভেম্বর বৃহস্পতিবার ৪/৫ জন সন্ত্রাসী দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে ফুলবাড়ীয়া বাজার পুস্তক প্রকাশক ও বিক্রেতা সমিতির অফিসে ঢুকে হৃদয়ের উপর অতর্কিত হামলা চালায়। এ সময় অফিস কক্ষে থাকা জাতিরজনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ও প্রধানমন্ত্রীর ছবিসহ মূল্যবান জিনিসপত্র ভাংচুর করে। হৃদয়ের আত্মচিৎকারে স্থানীয় লোকজন হৃদয়কে গুরুতর আহত অবস্থায় প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করে। সেখানে ভর্তি করে প্রাথমিক চিকিৎসার পর নিবিড় পরিচর্যার জন্য তাকে ট্রমা সেন্টারে নেয়া হয়েছে। এ ব্যাপারে হৃদয়ের পিতা গোলাম ফারুক সুরুজ বাদী হয়ে ১। মোঃ শরিফুল ইসলাম শরিফ, ২। মোঃ নাহিদ মিয়া, ৩। মোঃ ইব্রাহিম, ৪। মোঃ রুহুল আমীন, ৫। মোঃ জোবায়ের রহমান তৌহিদসহ অজ্ঞাতনামা ১৫ জনের বিরুদ্ধে ফুলবাড়ীয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করে। মামলা নং- ১৫/২৮৩, তারিখ- ২৪/১১/২০১৭ ইং। উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি রফিকুল ইসলাম রাকিব বলেন, এ বিষয়ে একটি টিম গঠন করা হয়েছে, ঘটনাটি যাচাই-বাছাই চলছে। পরবর্তীতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। মামলার তদন্ত অফিসার এস.আই নবীনূর জানান, আসামীরা পলাতক রয়েছে তবে গ্রেফতারের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

 

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY